দুদক এনফোর্সমেন্ট ইউনিটের অভিযান

অপরাধ আইন ও আদালত

নিজস্ব প্রতিনিধি : মানিকগঞ্জের সদর উপজেলার কাটিগ্রাম বাজার থেকে আটিগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদ পর্যন্ত সড়ক সংস্কারে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান কর্তৃক নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহারের অভিযোগের প্রেক্ষিতে অভিযান পরিচালনা করেছে দুদক। দুদক এনফোর্সমেন্ট ইউনিটে আগত অভিযোগের প্রেক্ষিতে দুদক, সজেকা, ঢাকা-২-এর সহকারী পরিচালক রেজাউল করিম-এর নেতৃত্বে গতকাল (১৫-০২-২০২১ খ্রি.) এ অভিযান পরিচালিত হয়। দুদক এনফোর্সমেন্ট টিম সরজমিনে পরিদর্শন পূর্বক অভিযোগের সত্যতা পায়। মানিকগঞ্জের সদর উপজেলার কাটিগ্রাম বাজার থেকে আটিগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদ পর্যন্ত তিনহাজার একশত মিটার সড়ক সংস্কারে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান সম্পা এন্টারপ্রাইজ কর্তৃক নিম্নমানের ইট সুরকি ও অন্যান্য সামগ্রী ব্যবহারের করেছে এবং এ কাজে তদারকির দায়িত্বে থাকা সদর উপজেলার উপ-সহকারী প্রকৌশলী ইসলাম হোসেনের দায়িত্বে অবহেলার প্রাথমিক প্রমাণ রয়েছে। এনফোর্সমেন্ট টিম বর্ণিত অভিযোগের বিষয়ে স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর, মানিকগঞ্জ-কে উক্ত কাজের প্রাক্কলন অনুযায়ী যথাযথ নিয়ম অনুসরণপূর্বক কাজ সম্পূর্ণ করার নির্দেশনা প্রদান করেছে এবং এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট রেকর্ডপত্র সংগ্রহ করেছে। নির্দেশ অনুযায়ী কতৃপক্ষ ইতোমধ্যে কাজ বন্ধ করে পুনরায় নির্দিষ্ট মান অনুযায়ী কাজ করার ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। সড়ক সংস্কারে ক্ষেত্রে কি ধরনের অনিয়ম বা দুর্নীতি সংঘটিত হয়েছে এবং উক্তরূপ অনিয়ম ও দুর্নীতি সাথে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানসহ অন্য কারা জড়িত সে বিষয়টি অধিকতর নিশ্চিত হওয়ার লক্ষ্যে সংশ্লিষ্ট দপ্তর সমূহ হতে আরও রেকর্ডপত্র সংগ্রহপূর্বক পরবর্তীতে বিস্তারিত পর্যালোচনা করে কমিশন বরাবর পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন দাখিল করবে দুদক টিম।
কিশোরগঞ্জ জেলা কারাগারের জেল সুপার বজলুর রশিদ-এর বিরুধে একই সাথে নিজের নামে একাধিক সরকারি বাসা বরাদ্দ ও ব্যবহারের এবং কয়েদিদের নিম্নমানের খাবার সরবরাহের অভিযোগের প্রেক্ষিতে অভিযান পরিচালনা করেছে দুদক, সজেকা, ময়মনসিংহ। দুদক এনফোর্সমেন্ট টিম সরজমিনে পরিদর্শনপূর্বক এ সকল অভিযোগের সত্যতা পায়নি। একাধিক সরকারি বাসা বরাদ্দ ও ব্যবহারের বিষয়ে প্রাথমিক অনুসন্ধানে জানা যায় তিনি সরকারি পুরাতন বাসায় অবস্থান করা অবস্থায় তার নামে নতুন বাসা বরাদ্দ হয় এবং এ জন্য নিয়মানুযায়ী তার বাসাভাড়া কর্তন করা হচ্ছে। কয়েদিদের নিম্নমানের খাবার সরবরাহের ক্ষেত্রে কোন তথ্যপ্রমাণ পাওয়া যায়নি। নিয়ম বহিরভূতভাবে ক্যান্টিন পরিচালনার ক্ষেত্রে কারারক্ষী সেলিমের আংশিক সংশ্লিষ্টতা পাওয়া গিয়েছে। এ ক্ষেত্রে কোন অনিয়ম বা দুর্নীতি সংঘটিত হয়েছে কিনা এবং উক্তরূপ অনিয়ম ও দুর্নীতি হলে এর সাথে কারা জড়িত সে বিষয়টি অধিকতর নিশ্চিত হওয়ার লক্ষ্যে সংশ্লিষ্ট দপ্তর সমূহ হতে আরও রেকর্ডপত্র সংগ্রহপূর্বক পরবর্তীতে বিস্তারিত পর্যালোচনা করে কমিশন বরাবর পূর্ণাঙ্গ প্রতিবেদন দাখিল করবে দুদক টিম।

এছাড়া অধ্যাপকের বিরুদ্ধে সরকারি খাস জমি জোরপূর্বক দখল, প্রধান শিক্ষক কর্তৃক শিক্ষার্থীদের নিকট হতে পরীক্ষার ফি বাবদ অতিরিক্ত অর্থ আদায়, স্থানীয় প্রভাবশালী ব্যক্তির বিরুধে মসজিদের জন্য বরাদ্দকৃত অর্থ আত্মসাৎ এবং প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের মার্কশীট প্রদানে বেআইনিভাবে অর্থ আদায়ের অভিযোগে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উপজেলা নির্বাহী অফিসার, আটোয়ারী, পঞ্জগড়; বানিয়াচং, হবিগঞ্জ; চারঘাট, রাজশাহী ও দৌলতখান, ভোলা-কে উক্ত বিষয়সমূহ অবহিত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য পত্র প্রেরণ করে হয়েছে।